fbpx
শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:১৯ অপরাহ্ন

ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম ?

আসিফ / ৮৮০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : শনিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম
ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম

81 / 100

প্রিয় বন্ধুগন আজকে আপনাদের জানাবো ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম না মাখরুহ…। তাহলে আসুন জেনে নেওয়া যাক। একটি  মাদ্রাসায় গতবছর এক জন ব্যক্তি অনেকগুলো ব্রয়লার মুরগি দিয়েছে। এগুলো বাজার থেকে ড্রেসিং করে এনেছেন। মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ এ নিয়ে দ্বিধাবিভক্ত হয়ে গেছে। কেউ বলছে এগুলো খাওয়া যাবে কিন্তু আবার অনেকে বলছে ড্রেসিং করা যায়েজ নেই। এগুলো খাওয়া মাকরূহে তাহরীমী এ নিয়ে মতভেদ রয়েছে। পরবর্তীতে এগুলো ফ্রিজে রেখে দেয়া হয়।

এখন কি করনীয়?

প্রিয় বন্ধুগন আমাদের দেশে প্রচলিত যে ব্রয়লার মুরগি অথবা দেশি মুরগি অথবা অন্যান্য যে মোরগ-মুরগি রয়েছে গুলোকে যবাই করার পর ড্রেসিং করাণ যে প্রচলিত পদ্ধতি রয়েছে সেটি হলো গরম পানিতে কিছুক্ষণ রেখে তারপর সেখান থেকে উঠিয়ে খুব সহজে শরীর থেকে চামড়া গুলো উঠানো হয়।

ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম

এ ক্ষেত্রে শরীয়তের বিধান যখন মুরগি জবাই করে দেওয়া হয় মোরগ-মুরগি তখন কিছু নাপাক জিনিস  থাকে তার পেটের ভিতরে। এমন ভাবে গরম পানিতে প্রাণিসম্পদ সেদ্ধ হয়ে যায় তাদের এই পরিমাণ সেদ্ধ হয় যে সেই নাপাক জিনিসের  প্রতিক্রিয়া শরীরের অন্যান্য অঙ্গ এবং গোস্তের মধ্যে ছড়িয়ে পারে। যদি এমন ভাবে হয় তাহলে সেই ডেসিং পদ্ধতিতে সেই যবেহকৃত প্রাণীটি আর হালাল থাকবে না। এটি নাপাক হয়ে যাবে।(ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম)

ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম

ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম

কিন্তু আমাদের যে প্রচলিত পদ্ধতির ড্রেসিং সিস্টেম রয়েছে এতে গরম পানি থাকে এবং গরম পানিতে প্রাণীগুলো বিশেষ করে ব্রয়লার মুরগি গুলোকে খুব সামান্য সময়ে বিজিয়ে তারপর তুলে ফেলা হয়। তাই অল্প সময়ে ভিজানো হয় যাতে শরীরের ভেতর পর্যন্ত সেই গরম পানির উত্তাপ পৌঁছে না। না পৌঁছনোর  কারণে ভেতরে যে নাপাকী  রয়েছে সেই নাপাকী গুলোর প্রতিক্রিয়াও মুরগির গোস্তের মধ্যে এটা বিস্তৃতি লাভ করে না। সুতরাং শরীয়ত আলোকে এই ধরনের ব্রয়লার মুরগি এবং এই স্বল্প সময়ের গরম পানিতে উত্তপ্ত দেওয়া এই ড্রেসিং পদ্ধতিতে গোস্তের মধ্যে কোন নাপাকী  প্রতিক্রিয়াটা বিস্তারলাভ না করাতে এটি যায়েজ। এটি কোন ধরনের সমস্যা বা কারাহাত নেই। মাখরুও হবে না এটি সম্পূর্ণরূপে বৈধ এবং হালাল হবে। (ড্রেসিং করা মুরগি হালাল না হারাম)।

**তবে খেয়াল রাখতে হবে যেন গরম পানিতে প্রয়োজনের অতিরিক্ত বা বেশী সময় যেন এটিকে ভিজিয়ে না রাখা হয়।

ধন্যবাদ।।।

যেনা করার পর তাকে বিয়ে করলে কি হয়?

ফেসবুকে যুক্ত হউন


আপনার মতামত লিখুন :

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ